‘কঠোর’ বিধিনিষেধেও খোলা ব্যাংক, জেনে নিন সময়সূচি

ঈদের পর ২৩ জুলাই থেকে ৫ আগস্ট পর্যন্ত ‘কঠোর’ বিধিনিষেধ ঘোষণা করেছে সরকার। এবারের বিধিনিষেধে গণপরিবহন-মার্কেটের সঙ্গে গার্মেন্টস, শিল্পকারখানাও বন্ধ থাকবে বলে জানানো হয়েছে। তবে খোলা থাকছে ব্যাংক।

বাংলাদেশ ব্যাংক সূত্রে জানা যায়, ‘কঠোর’ বিধিনিষেধ চলাকালে ২৫ জুলাই (রোববার) থেকে ৫ আগস্ট পর্যন্ত সকাল ১০টা থেকে দুপুর দেড়টা পর্যন্ত ব্যাংকে লেনদেন করা যাবে। লেনদেনপরবর্তী সময়ের কাজ গোছানোর জন্য ব্যাংক খোলা রাখা যাবে দুপুর ৩টা পর্যন্ত। আগেরবার ‘কঠোর’ বিধিনিষেধে রোববার ব্যাংক বন্ধ ছিল। এবারের বিধিনিষেধে রোববারও ব্যাংক খোলা থাকতে পারে।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের মুখপাত্র সিরাজুল ইসলাম গণমাধ্যমকে বলেন, ২৫ জুলাই ব্যাংক খোলা থাকবে। এর আগে কঠোর বিধিনিষেধে কারণে সাপ্তাহিক ছুটির সঙ্গে রোববার ছুটির বিষয় বিবেচনা করা হয়েছিল। তবে সামনের কঠোর বিধিনিষেধে রোববার বন্ধ থাকার বিষয়ে নতুন কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

এদিকে সোমবার (১৯ জুলাই) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের এক প্রজ্ঞাপনে জানা গেছে বিধিনিষেধে বিষয়ে সরকারের আরও একটি নতুন সিদ্ধান্ত। প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, ‘কঠোর’ বিধিনিষেধে আওতামুক্ত থাকবে তিনটি সেক্টর।

এতে বলা হয়, খাদ্যপণ্য উৎপাদন ও প্রক্রিয়াজাতকরণের সঙ্গে যুক্ত মিল-কারখানা, কোরবানির পশুর চামড়া সংরক্ষণ ও প্রক্রিয়াজাতকরণ এবং ওষুধ, অক্সিজেন ও কোভিড-১৯ প্রতিরোধে ব্যবহারের জন্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য উৎপাদনকারী শিল্প-কারখানার কার্যক্রম কঠোর বিধিনিষেধের আওতার বাইরে থাকবে।

প্রসঙ্গত, দেশে করোনা শনাক্তের সংখ্যা এখনও না কমায় আগামী ২৩ জুলাই সকাল ৬টা থেকে ৫ আগস্ট দিবাগত রাত ১২টা পর্যন্ত ‘কঠোর’ বিধিনিষেধ দিয়েছে সরকার। এসময়কালে জরুরি প্রয়োজন ও কাজ ছাড়া কাউকে ঘর থেকে বের না হওয়ার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

জেডএইচ

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm