ইউএনওকে দেখে পালাল মাটি ব্যবসায়ীরা

খালের মাটি অবৈধভাবে কেটে বিক্রির অভিযোগ উঠেছে মিরসরাইয়ের দুর্গাপুর ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের হরিহরপুরে ইউপি সদস্য আলাউদ্দিনের বিরুদ্ধে।

বুধবার (২৬ মে) রাতে ইউএনও অভিযান চালালে স্কেভেটর ও পিকআপ রেখে পালিয়ে যায় আলাউদ্দিনের লোকজন।

জানা গেছে, উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের হরিহরপুর গ্রামের ভাঙ্গাদোকান খালটির মাটি অবৈধভাবে কেটে গত ১৫-২০ দিন ধরে প্রতি পিকআপ আটশ’ থেকে নয়শ’ টাকায় বিক্রি করে আসছেন স্থানীয় ইউপি সদস্য ও আওয়ামী লীগ নেতা আলাউদ্দিন। তার নেতৃত্বে স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগের একটি গ্রুপ মাটি ব্যবসায় জড়িত রয়েছে।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. মিনহাজুর রহমানের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান পরিচালনা করা হলে আলাউদ্দিনের লোকজন ১টি স্কেভেটর ও ৬টি পিকআপ ফেলে পালায়। স্কেভেটর ও ট্রাকগুলোর ব্যাটারি খুলে জব্দ করেন ইউএনও।

এ সময় ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন সহকারী পুলিশ সুপার (মিরসরাই সার্কেল) লাবিব আবদুল্লাহ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ইউএনও মো. মিনহাজুর রহমান বলেন, স্কেভেটর দিয়ে মাটি কাটার খবর পেয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। এ সময় ১টি স্কেভেটর ও ৬টি পিকআপের ব্যাটারি জব্দ করা হয়েছে। মাটি বিক্রির বিষয়ে মো. আলাউদ্দিনকে নোটিশ করা হবে। জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

আজিজ/ডিসি

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm