‘সাবধান’—জলাবদ্ধতায় ওঁৎ পেতে ৭ বিপদ

কয়েক ঘণ্টার টানা বৃষ্টিতে ফের ডুবেছে চট্টগ্রাম। রোববার (৬ জুন) সকাল থেকেই চলছে ভারী বৃষ্টি। দুপুর আড়াইটার দিকে বৃষ্টি কিছুটা কমলেও দুর্ভোগ দূর হয়নি।

এদিকে একটানা ভারী বৃষ্টিতে নগরের নিম্নাঞ্চল ও বেশকিছু গুরুত্বপূর্ণ রাস্তায় দেখা দিয়েছে জলাবদ্ধতা। কোথাও হাঁটুপানি, আবার কোথাও পানি কোমর পর্যন্ত!

জলাবদ্ধ নগরে দেখা দিচ্ছে নানা সমস্যা। তাই এ সময়ে অন্তত সাতটি বিষয়ে সতর্ক থাকা জরুরি বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞ ও সচেতন মানুষ। তা না হলে পোহাতে হবে ভোগান্তি, ঘটতে পারে বড় ধরনের বিপদ।

রাস্তায় খানা-খন্দ

নগরের বিভিন্ন রাস্তায় চলমান উন্নয়ন প্রকল্পের কারণে সৃষ্টি হয়েছে খানা-খন্দ। রাস্তা পানিতে ডুবে যাওয়ায় এসব খানা-খন্দ চোখে পড়ে না। তাই হাঁটা কিংবা যানবাহনে চলাচলে সতর্ক না হলে ঘটতে পারে দুর্ঘটনা।

উন্মুক্ত ম্যানহোল-ড্রেন

নগরের অনেক স্থানেই ড্রেনের উপরে স্ল্যাব নেই। আবার কিছু স্থানে পরিচ্ছন্ন কর্মীরা ময়লা পরিষ্কারের জন্য স্ল্যাব তুলে রেখেছেন, যা আগের জায়গায় বসানো হয়নি। অনেকসময় ম্যানহোলের ঢাকনা-স্ল্যাব চুরিও হয়ে যায়। তাই অন্তত বর্ষায় এসব বিষয় মাথায় রেখে চলাচলে সাবধানে পা ফেলা উচিত।

বাসায় জলজট

নগরের কিছু এলাকার বাসা-বাড়িতে আজকের বৃষ্টিতে পানি ঢুকে গেছে। তাই বাড়তি প্রস্তুতি নেওয়া প্রয়োজন নগরের নিচু এলাকার নিচতলার বাসিন্দাদেরও।

যানবাহনে সতর্কতা

বৃষ্টি হলেই জলাবদ্ধতায় যানবাহন অচল হয়ে পড়ার চিত্র নিয়মিত। তাই বৃষ্টির দিনে যানবাহন চালকদের পাশাপাশি সতর্ক থাকতে হবে যাত্রীদেরও।

শিশুদের নিয়ে বিশেষ সাবধানতা ‍

বৃষ্টিতে যেসব এলাকায় জলাবদ্ধতা হয় সেসব এলাকার শিশুর অভিভাবকদের এ সময়টাকে একটু বেশি সচেতন থাকতে হবে। বাসাবাড়ি কিংবা বাড়ির সামনে রাস্তায় পানি জমলে শিশুদের চোখে চোখে রাখতে হবে। তা না হলে এ জলাবদ্ধতায় মুহূর্তেই ঘটে যেতে পারে বিপদ।

দোকান-ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানে সতর্কতা

বেশি বৃষ্টি হলে নগরের নিচু এলাকায় দোকান-ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানে পানি ঢুকে যায়। এজন্য দোকান-ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানে পানি ঢোকার আগেই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া উচিত। প্রয়োজনে পানিতে সমস্যা হতে পারে এমন পণ্য উপরে তুলে ফেলতে হবে। বিশেষ করে চাক্তাই-খাতুনগঞ্জের ছোট-বড় ব্যবসায়ীদের ক্ষেত্রে এটি খুব জরুরি।

আরও সতর্ক থাকুন…

বর্ষায় যেকোনো গন্তব্যে যাওয়ার ক্ষেত্রে হাতে একটু বেশি সময় নিয়ে বের হওয়া উচিত। আবার এ সময়টাতে সতর্ক থাকতে হবে পানিবাহিত রোগের বিষয়েও।

আলোকিত চট্টগ্রাম

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm