রাউজানের ‘আতঙ্ক’ আজিজ বাহিনীর প্রধান আজিজ্যা গ্রেপ্তার

রাউজানের ‘আতঙ্ক’ আজিজ বাহিনী বাহিনীর প্রধান আজিজ উদ্দিন প্রকাশ আজিজ্যা প্রকাশ ইমুকে অবশেষে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। তার বিরুদ্ধে হত্যাসহ ডজনখানেক মামলা রয়েছে।

মঙ্গলবার (১১ জানুয়ারি) রাতে নগরের আকবরশাহ থানার একেখান এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব-৭ এর একটি দল।

আটক আজিজ্যা (৪৪) রাউজান উপজেলার হরিষখান এলাকার মৃত বজল আহাম্মদের ছেলে।

আরও পড়ুন: রাউজানে প্লাস্টিক—পলিথিন জমা দিলেই নগদ টাকা!

র‌্যাব সূত্রে জানা যায়, ২০১৫ সালের ২৫ ফেব্রুয়ারি রাউজান ও রাঙামাটি সড়কের চারাবটতল এলাকায় যুবলীগ কর্মী শহিদুল আলমকে ফিল্মি স্টাইলে নৃশংসভাবে গুলি করে হত্যা করা হয়। ঘটনার পর রাউজান থানায় একটি হত্যা মামলা করা হয়। হত্যাকাণ্ডের পর আসামিরা বিদেশে পালিয়ে যায়। বিদেশে বসেই আজিজ তার বাহিনীকে পরিচালনা করে আসছিল। সম্প্রতি আজিজ উদ্দিনের দেশে আসার খবরে গোয়েন্দা নজরদারি শুরু করে র‌্যাব। পরে তাকে একেখান এলাকা থেকে গোপন সংবাদে গ্রেপ্তার করা হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র পরিচালক (মিডিয়া) মো.নুরুল আবছার জানান, রাউজানের শীর্ষ সন্ত্রাসী আজিজ বাহিনী প্রধান ও যুবলীগ কর্মী শহিদুল হত্যা মামলার প্রধান আসামি আজিজ উদ্দিন প্রকাশ আজিজ্যা প্রকাশ ইমু দীর্ঘদিন বিদেশে পলাতক ছিলেন। পরে তিনি দেশে এসেছেন— এমন তথ্যের ভিত্তিতে গোয়েন্দা নজরদারির পাশাপাশি গোপন সংবাদে অভিযান চালিয়ে নগরের একেখান এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়।

তিনি আরও বলেন, তার বিরুদ্ধে রাউজান থানায় ৫টি হত্যা মামলা, চুরি, ডাকাতি, অপহরণ, চাঁদাবাজিসহ ১৪টি মামলা রয়েছে। আইনানুগ প্রক্রিয়া শেষে তাকে সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

এএইচ/আরবি

 

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm