স্বতন্ত্র প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল চান আওয়ামী লীগ প্রার্থী

মিরসরাইয়ে চেয়ারম্যান পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. মোস্তফার মনোনয়নপত্র বাতিলের দাবি জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ প্রার্থী নুরুল মোস্তফা।

বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) বিকেলে তিনি রিটার্নিং কর্মকর্তা শাহ্ মো. নূরের কাছে এ ব্যাপারে লিখিত অভিযোগ করেন।

অভিযোগে তিনি উল্লেখ করেন, প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী আনারস প্রতীকের মো. মোস্তফা রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে দেওয়া মনোনয়নপত্রের দ্বিতীয় খণ্ডে ব্যক্তিগত পরিচিতির স্থানে জন্ম, সাল ও তারিখ অসত্য উপস্থাপন করেছেন। এছাড়া স্থায়ী ও বর্তমান ঠিকানা জাতীয় পরিচয়পত্র অনুযায়ী মিরসরাই উপজেলার ইছাখালী ইউনিয়নের লুদ্দাখালী গ্রাম হলেও তিনি সেখানে ঢাকা এবং লন্ডন বলে উল্লেখ করেছেন। স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. মোস্তফা দ্বৈত নাগরিক বলে প্রতীয়মান হওয়ায় তার মনোনয়ন পত্র বাতিলের দাবি জানান তিনি।

আরও পড়ুন : প্রতীক বরাদ্দ—মিরসরাইয়ে ৩ ইউনিয়নে বিদ্রোহ দমাতে পারেনি আওয়ামী লীগ

লিখিত অভিযোগ সম্পর্কে রিটার্নিং কর্মকর্তা শাহ মো. নূর আলোকিত চট্টগ্রামকে বলেন, মূলত উচ্চ আদালতের আদেশে আমরা স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. মোস্তফার মনোনয়নপত্র গ্রহণ করেছি এবং সকল নিয়ম মেনে বৈধ ঘোষণা করেছি।

Thai Food

এসব অভিযোগ সম্পর্কে মিরসরাই উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফারুক হোছাইন বলেন, ইছাখালী ইউনিয়নের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. মোস্তফা তফসিল ঘোষিত তারিখে মনোনয়নপত্র জমা দেননি। পরে তিনি এ বিষয় নিয়ে উচ্চ আদালতের শরণাপন্ন হন। বিজ্ঞ আদালত তাঁর মনোনয়নপত্র গ্রহণের আদেশ দিলে আমরা তা গ্রহণ করে যাচাই-বাছাই শেষে বৈধ ঘোষণা করি। সেই সঙ্গে গত ২৭ অক্টোবর প্রতীক বরাদ্দ করি।

মনোনয়নপত্রে প্রার্থীর দেওয়া তথ্যে অসঙ্গতি থাকার প্রশ্নে তিনি বলেন, জন্ম তারিখ বা সাল ভুল হলে মনোনয়নপত্র অবৈধ ঘোষণার কোনো সুযোগ নেই।

স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. মোস্তফা বলেন, আমার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী নুরুল মোস্তফা যে অভিযোগ দিয়েছেন তা কোনোভাবেই সত্য নয়। আমার জমা দেওয়া মনোনয়নপত্রে কোনো ধরনের অসত্য তথ্য উপস্থাপন করা হয়নি।

উল্লেখ্য, দ্বিতীয় ধাপের তফসিল অনুযায়ী মিরসরাই উপজেলার ১৬টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১১ নভেম্বর।

আজিজ/ডিসি
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm