১০ মামলা কাঁধে নিয়েই সোহেলকে হত্যা করতে বুক কাঁপেনি জাফরের

চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুণ্ড থানার চাঞ্চল্যকর কুরবান আলী সোহেল হত্যা মামলার প্রধান আসামিসহ ২ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৭।

বুধবার (১৬ জুন) নগরীর ইপিজেড থানার দক্ষিণ পতেঙ্গার খেজুরতলা এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

আটকরা হলেন-সীতাকুণ্ড থানার পশ্চিম মুরাদপুর ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ড এলাকার আবুল মনসুরের ছেলে মো. আবু জাফর (৩৪), নুরুজ্জামানের ছেলে সাহাব উদ্দিনের (৩৫)।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন র‌্যাব-৭ এর সহকারী পরিচালক মিডিয়া মো. নুরুল আবছার।

র‌্যাব জানায়, সীতাকুণ্ড থানার ৪ নম্বর মুরাদপুর ইউনিয়ন এলাকার মুক্তিযোদ্ধা মো. দেলোয়ার হোসেনের ছেলে চাঞ্চল্যকর কুরবান আলী সোহেল (২৩) হত্যায় একমাস আগে সীতাকুণ্ড থানায় ১২ জনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা করা হয়। বুধবার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ইপিজেড থানার দক্ষিণ পতেঙ্গার খেজুরতলা এলাকার থেকে মামলার প্রধান আসামি মো. আবু জাফরসহ ২ জনকে গ্রেফতার করা হয়।

আটক আবু জাফরের বিরুদ্ধে হত্যা, মাদক ও বিশেষ ক্ষমতা আইনে ১০টি মামলা ও সহযোগী সাহাব উদ্দিনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলাসহ ৩টি মামলা রয়েছে। আসামিদের সীতাকুণ্ড থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ১৮ মে রাত ৯ টায় বন্ধুর সাইকেলে সীতাকুণ্ড বাজারে যাওয়ার সময় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের মুরাদপুর পেশকারপাড়ায় নির্মমভাবে কুপিয়ে হত্যা করা হয় সোহেলকে। তিনি সীতাকুণ্ড উপজেলার ছাত্রদলের রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলেন।

আরবি

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm