স্পট/কাজীর দেউরি—দিনে জুয়া, সন্ধ্যা নামলেই গাঁজার আসর, পুলিশের হানায় আটক ৪

দিনে বসে জুয়া, সন্ধ্যা হলেই বসে গাঁজা সেবনের আসর। চট্টগ্রাম আউটার স্টেডিয়ামের খোলা মাঠে তাবু টাঙিয়ে দেওয়া হয়েছে ঘেরা। প্রথম দেখাই মনে হতে পারে কোনো ভাসমান মানুষের আশ্রয়স্থল। কিন্তু না, তাঁবুর ভেতর দিন-রাত চলে অপকর্ম।

বৃহস্পতিবার (২৭ মে) দুপুরে এখানেই কোতোয়ালী থানা পুলিশের একটি দল হানা দেয়। এ সময় চার জুয়াড়ি দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করলেও পুলিশ তাদের আটক করে। তারা হলেন, মো. মামুন, মো. মোশারফ, মো. আকাশ ও মো. বশির।

কোতোয়ালী থানার ওসি মোহাম্মদ নেজাম উদ্দিন আলোকিত চট্টগ্রামকে বলেন, ‘আটককৃতরা ওই এলাকায় জুয়াড়ি হিসেবে পরিচিত। তাদের কারণে স্থানীয় যুবকরা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জুয়ার আসর থেকে তাদের আটক করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।’

স্থানীয়রা জানান, এসব অপকর্মের মূলহোতা কবির নামের এক ব্যক্তি। স্টেডিয়াম এলাকায় খোয়াজা হোটেলের বিপরীতে মাঠের প্রবেশপথেই ঝুপড়িতে সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত তার অবস্থান নজরে পড়ার মতো। স্টেডিয়ামে ঢোকার মুখে বাম পাশের ফুটপাতের জায়গায় তার রয়েছে একটি ঝুপড়ি চায়ের দোকান। এই চায়ের দোকান থেকেই নিয়ন্ত্রিত হচ্ছে এনায়েতবাজার থেকে কাজির দেউরি এলাকার জুয়া, মাদক, চুরি, ছিনতাইসহ নানা অপরাধ।

আলোকিত চট্টগ্রাম

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm