সাহায্যের নামে ছিনতাই—গ্রেফতার ২

রাত হলে চষে বেড়ান নগরের পাইকারি বাজার, মার্কেট ও অলিগলি। খুঁজতে থাকেন শিকার। সুযোগ বুঝে বিপদে পড়া মানুষ দেখলেই বাড়িয়ে দেন সাহায্যের হাত। ভুলিয়ে-ভালিয়ে নিয়ে যান অন্ধকার গলির ভিতর। ছুরির ভয় দেখিয়ে হাতিয়ে নেয় সর্বস্ব। প্রায় প্রতিদিন তাদের পাতা ফাঁদে না পা দিয়েছেন কেউ না কেউ।

তবে এবার আর শেষ রক্ষা হয়নি। এমন অভিনব কায়দার চতুর ছিনতাইকারী চক্রের দুই সদস্য ধরা পড়েছে পুলিশের জালে।

শনিবার (১০ জুলাই) রাত ২টায় কোতোয়ালী থানার নুপুর মার্কেট পাখি গলির সাতকানিয়া ভাতঘরের ভিতর হতে মো. তারেক, মো. আব্বাস উদ্দিন নামের দু’জনকে আটক করেছে কোতোয়ালী থানা পুলিশ।

এ সময় তাদের কাছ থেকে নগদ ৭ হাজার টাকা ও একটি মোবাইল ফোনসেট উদ্ধার করা হয়।

Yakub Group

কোতোয়ালী থানা সূত্রে জানা যায়, মো. শহীদুল্লাহ (৩০) একজন সবজি বিক্রেতা। তিনি রিয়াজউদ্দিন বাজার হতে পাইকারি সবজি ক্রয় করে পটিয়ায় কাঁচাবাজারে খুচরায় বিক্রি করেন।

৯ জুলাই (শুক্রবার) রাত ১টায় রিয়াজউদ্দিন কাঁচাবাজার যাওয়ার পথে তার জুতা হঠাৎ ছিঁড়ে যায়। তিনি জুতাজোড়া হাতে নিয়ে কোতোয়ালী থানার নুপুর মার্কেটের সামনে আসলে অজ্ঞাতনামা ২ যুবক তার জুতা হাতে নেওয়ার কারণ জানতে চেয়ে সাহায্যের কথা বলেন। পরে ওই দুই যুবক তাদের জুতার দোকান আছে জানিয়ে তাকে নুপুর মার্কেটের সামনে পূরবী বেকারির গলিতে যাওয়ার জন্য বললে তিনি সরল বিশ্বাসে তাদের সাথে গলির ভিতর গেলে আরও ২ জন অজ্ঞাতনামা যুবক এসে তাকে ছুরি ধরে ভয়ভীতি প্রদর্শন করে সাথে থাকা নগদ ৭ হাজার ৬০০ টাকা ও তার মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়ে চলে যায়।

পরে ভুক্তভোগী কোতোয়ালী থানায় এসে মামলা করলে অভিযানে নামে পুলিশ।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মো. সাদ্দাম শনিবার মধ্যরাতে নুপুর মার্কেট পাখি গলিতে অভিযান পরিচালনা করে সাতকানিয়া ভাতঘরের ভিতর হতে অভিযুক্তদের আটক করেন।

আরবি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm