রথযাত্রা উৎসব—চট্টগ্রামজুড়ে বর্ণিল আয়োজন

চট্টগ্রামে শ্রীশ্রী জগন্নাথদেবের রথযাত্রা উৎসব শুক্রবার দিনব্যাপী নানা ধর্মীয় আয়োজনে অনুষ্ঠিত হবে।

এ উপলক্ষে নগরের নন্দনকান, তুলসীধাম ও ইসকন প্রবর্তক শ্রীকৃষ্ণ মন্দিরে মাঙ্গলিক অনুষ্ঠানমালায় বর্ণিল আয়োজন রয়েছে। প্রত্যেক মন্দির থেকে পৃথকভাবে বিকেলে বের করা হবে বর্ণাঢ্য মহাশোভাযাত্রা। এতে বিভিন্ন সংগঠনের ভক্তরা ব্যানার, প্লেকার্ড, ফেস্টুন, পৌরাণিক সাজ ও বাদযন্ত্র নিয়ে যোগ দিবেন। সনাতন ধর্মাবলম্বীদের ঢল নামবে এই মহাশোভায়। আগামী ৮ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে উল্টো রথযাত্রা।

আরও পড়ুন: ১ জুলাই বর্ণিল রথযাত্রা, ইসকনের ৯ দাবি

শাস্ত্রে আছে- ‘রথস্থ বামনং দৃষ্টা পুনর্জন্ম ন বিদ্যাত’। অর্থাৎ কেউ যদি রথের দড়ি টানে, রথ স্পর্শ করে বা রথোপবিষ্ট জগন্নাথদেবকে দর্শন করেন তাহলে তাকে পুনরায় জন্ম-মৃত্যুর চক্রে আবদ্ধ হতে হয় না। এ বিশ্বাস অন্তরে ধারণ করে ভক্তরা প্রাণের টানে ছুটে আসেন রথের রশি টানতে। রথযাত্রার এই উৎসবে অংশগ্রহণ করার উদ্দেশ্য হলো আত্মোপলব্ধির পথে এগিয়ে যাওয়া।

Yakub Group

এদিকে নগরের পাথরঘাটার শান্তনেশ্বরী মাতৃমন্দির, ও আর নিজাম রোডের গোলপাহাড় মহাশ্মশান কালী মন্দির ও পাহাড়তলীর শ্রীশ্রী রাধা গোবিন্দ সেবাশ্রম থেকে রথযাত্রা উপলক্ষে মহাশোভা বের করা হবে। এছাড়া সকাল থেকে রয়েছে বিভিন্ন ধর্মীয় কর্মসূচি।

নন্দনকানন শ্রীশ্রী রাধামাধব ও গৌরনিতাই আশ্রম

আন্তর্জাতিক কৃষ্ণভাবনামৃত সংঘ (ইসকন) চট্টগ্রাম বিভাগীয় আয়োজিত শ্রীশ্রী জগন্নাথদেবের ২৫তম (রজতজয়ন্তী) কেন্দ্রীয় রথযাত্রা মহোৎসব নগরের ডিসি হিলে অনুষ্ঠিত হবে। এ উপলক্ষে শুক্রবার দিনব্যাপী নানা কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছে।

১ জুলাই (শুক্রবার) নন্দনকানন শ্রীশ্রী রাধামাধব মন্দিরের সামনে ডিসি হিল প্রাঙ্গণ থেকে রথযাত্রার মহাশোভাযাত্রা দুপুর ৩টায় শুরু হবে। এছাড়া ৭ দিনব্যাপী জেএম সেন হলে ভাগবদ সপ্তাহ পালন হবে। প্রতিবছরের মতো এবারও ১ জুলাই থেকে ৮ জুলাই পর্যন্ত ৮ দিনব্যাপী বিভিন্ন অনুষ্ঠানমালার শুভ সূচনা করতে ইসকন হেডকোয়ার্টার মায়াপুর ভারত থেকে ম সন্ন্যাসী শ্রীমৎ অমিয় বিলাস স্বামী মহারাজ, ইসকন বাংলাদেশের সিনিয়র সহসভাপতি শ্রীমৎ ভক্তিপ্রিয়ম্ গদাধর গোস্বামী মহারাজ, সংকীর্তন ও প্রচার বিভাগের পরিচালক শ্রীমৎ ভক্তিবিজয় ভাগবত স্বামী মহারাজ চট্টগ্রামে এসেছেন।

অনুষ্ঠানে সরকারের মন্ত্রী, চট্টগ্রামের মেয়র, সংসদ সদস্য, ভারতীয় সহকারী হাই কমিশনার, বিভাগীয় কমিশনার, পুলিশ কমিশনার, জেলা প্রশাসকসহ সুশীল সমাজের ব্যক্তিরা উপস্থিত থাকবেন।

মহাশোভাযাত্রা নন্দনকানন শ্রীশ্রী রাধামাধব মন্দির সম্মুখে ডিসি হিল প্রাঙ্গণ থেকে শুরু হয়ে চেরাগী পাহাড়-আন্দরকিল্লা-লালদীঘির পাড়-কোতোয়ালী-নিউমার্কেট-বোস ব্রাদার্স মোড় হয়ে নন্দনকানন গৌর নিতাই আশ্রম এসে শেষ হবে।

আগামী ৮ জুলাই (শুক্রবার) উল্টো রথযাত্রা নন্দনকানন গৌর নিতাই আশ্রম থেকে শুরু করে উল্টো পথে নন্দনকানন শ্রীশ্রী রাধামাধব মন্দিরে এসে শেষ হবে।

তুলসীধাম কেন্দ্রীয় রথযাত্রা উদযাপন কমিটি

চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় রথযাত্রা উৎসব উদযাপন কমিটির উদ্যোগে নন্দনকানন রথের পুকুর পাড়ে চট্টগ্রামের সর্বপ্রাচীন শ্রীশ্রী জগন্নাথ দেবের রথযাত্রা উৎসব শুক্রবার (১ জুলাই) দুপুর ৩টায় মহাসমারোহে অনুষ্ঠিত হবে। শ্রীশ্রী তুলসীধামের মোহন্ত শ্রীমৎ দেবদীপ পুরী মহারাজের পৌরহিত্যে মদনমোহন নরসিংহ গোপাল জীও’র মন্দিরে রথযাত্রা উদ্বোধন করবেন চট্টগ্রামে নিযুক্ত ভারতীয় সহকারী হাই কমিশনার ডা. রাজীব রঞ্জন।

কেন্দ্রীয় রথযাত্রা উৎসব উদযাপন কমিটির সভাপতি রঞ্জন প্রসাদ দাশগুপ্তের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি থাকবেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন, সিএমপি কমিশনার সালেহ্ মোহাম্মদ তানভীর, চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী ফরিদ, কাউন্সিলর জহরলাল হাজারী, শৈবাল দাশ সুমন ও পুলক খাস্তগীর, সমাজসেবক মো. সাহাবউদ্দিন ও অনুপ বিশ্বাস প্রমুখ। রথযাত্রা উৎসবে সকলের অংশগ্রহণ কামনা করেছেন উৎসব কমিটির সাধারণ সম্পাদক শ্যামদাশ ধর ও অর্থ সম্পাদক বিধান ধর।

রথ পরিক্রমা : তুলসীধাম-রাইফেল ক্লাব-নিউমার্কেট-কোতোয়ালী-লালদীঘির পাড়-নবগ্রহবাড়ি-আন্দকিল্লা-চেরাগী পাহাড়-প্রেসক্লাব-কাজির দেউড়ি-লাভ লেইন-বৌদ্ধ মন্দির-নন্দনকানন-তুলসীধাম। এছাড়া আগামী ৮ জুলাই ফিরতি রথযাত্রা তুলসীধাম থেকে শুরু হয়ে একইপথে মন্দিরে এসে শেষ হবে।

ইসকন প্রবর্তক শ্রীকৃষ্ণ মন্দির

রথযাত্রা উপলক্ষে ইসকন প্রবর্তক শ্রীকৃষ্ণ মন্দিরের উদ্যোগ ১ জুলাই থেকে ৮ জুলাই ৮ দিনব্যাপী বিভিন্ন মাঙ্গলিক অনুষ্ঠানমালার আয়োজন করা হয়েছে।

১ জুলাই (শুক্রবার) সকাল ১০টায় বিশ্বশান্তি ও মঙ্গল কামনায় অগ্নিহোত্র যজ্ঞানুষ্ঠান, দুপুর ১টায় জগন্নাথ লীলা বিষয়ক প্রবচন, দুপুর দেড়টায় মহাপ্রসাদ বিতরণ, দুপুর ২টায় ভাগবতীয় আলোচনা সভা, দুপুর ৩টায় শ্রী বিগ্রহগণের রথারোহন ও মহাশোভাযাত্রা শুরু।

আরও পড়ুন: ইসকনের রথযাত্রায় ২২ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান—১২০ সংগঠন, সরকারি ছুটি দাবি

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এমপি। উদ্বোধন করবেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, বিশেষ অতিথি থাকবেন সিটি মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরী, জেলা প্রশাসক মো. মমিনুর রহমান, ভারতীয় দূতাবাসের সহকারী হাইকমিশনার ডা. রাজীব রঞ্জন, চট্টগ্রাম উত্তর জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও জেলা পরিষদ প্রশাসক এমএ সালাম ।

রথ পরিক্রমা : প্রবর্তক মোড়-গোলপাহাড় মোড়-চট্টেশ্বরী মোড়-কাজির দেউড়ি-জামালখান-চেরাগী পাহাড়-আন্দকিল্লা-বক্সিবিট-লালদীঘির পাড়-কোতোয়ালী-নিউমার্কেট-রাইফেল ক্লাব-কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার-সিনেমা প্যালেস-হাজারী গলি। এছাড়া আগামী ৮ জুলাই ফিরতি রথযাত্রা হাজারী গলি থেকে শুরু হয়ে একইপথে প্রবর্তক এসে শেষ হবে।

আরবি/আলোকিত চট্টগ্রাম

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

মন্তব্য নেওয়া বন্ধ।

ksrm