চট্টগ্রামে পাকিস্তানের ম্যাচ—৭ স্তরের নিরাপত্তায় ৯০০ পুলিশ

বাংলাদেশ-পাকিস্তান সিরিজে খেলোয়াড়দের ৭ স্তরের নিরাপত্তা দেওয়া হবে। এর মধ্যে হোটেলে থাকবে ৩ স্তরের এবং স্টেডিয়ামে থাকবে ৪ স্তরের নিরাপত্তা। আর এ নিরাপত্তার দায়িত্ব পালন করবেন চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) ৯০০ সদস্য ।

বৃহস্পতিবার (১৮ নভেম্বর) নগরের দামপাড়ার পুলিশ কমিশনারের সম্মেলন কক্ষে বাংলাদেশ-পাকিস্তান দলের টেস্ট ম্যাচ উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন সিএমপি কমিশনার সালেহ মোহাম্মদ তানভীর।

আরও পড়ুন: বিশ্ব দেখবে বাংলাদেশ—সমুদ্রদর্শন আর ঢেউয়ের গর্জনে চলবে আন্তর্জাতিক ম্যাচ

Thai Food

তিনি বলেন, বাংলাদেশ-পাকিস্তান ক্রিকেট দল চট্টগ্রামে আসবে ২৩ নভেম্বর। উভয় দল ২৪ ও ২৫ নভেম্বর জহুর আহম্মেদ চৌধুরী স্টেডিয়াম চট্টগ্রামে অনুশীল করবে। এরপর ২৬ নভেম্বর একই স্টেডিয়ামে দুদেশের মধ্যে ৫ দিনের টেস্ট ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে। এরপর ১ ডিসেম্বর দুই দল ঢাকার উদ্দেশ্যে বিমান যোগে চট্টগ্রাম ত্যাগ করবে।

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশ-পাকিস্তান ক্রিকেট দল চট্টগ্রাম সফর উপলক্ষে পাঁচতারকা হোটেল চট্টগ্রাম রেডিসন ব্লুতে থাকবে ৩ স্তরের নিরাপত্তা। জহুর আহাম্মদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ৪ স্তরের নিরাপত্তা দেওয়া হবে। নিরাপত্তা ব্যবস্থার মধ্যে রয়েছে-সড়কপথে এস্কর্ট প্রদান, খেলোয়াড়দের আসা-যাওয়া, হোটেল ও স্টেডিয়ামকেন্দ্রিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা। এছাড়াও স্পেশাল রিজার্ভ ফোর্স হিসেবে কুইক রেসপন্স টিম, সোয়াট টিম, বোম্ব ডিস্পোজাল ইউনিট সহ পুলিশ লাইন্সে রিজার্ভ ফোর্স স্ট্যান্ডবাই হিসেবে প্রস্তুত থাকবেপুলিশ ছাড়াও র্যাব, এপিবিএন, ফায়ার সার্ভিস, এনএসআই, ডিজিএফআই, জেলা প্রশাসন, সিভিল সার্জন, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন ও বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরা নিরাপত্তায় নিয়োজিত থাকবেন।

সংবাদ সম্মেলনে অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) শ্যামল কুমার নাথ, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার(প্রশাসন ও অর্থ) সানা শামীনুর রহমান, উপ-পুলিশ কমিশনার (সদর) মো. আমির জাফরসহ ডিজিএফআই, এনএসআই, ফায়ার সার্ভিস, চসিক, বিমান বাহিনী, সিডিএ ও ওয়াসাসহ বিভিন্ন সংস্থার প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

আরবি

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm