৭ মার্চ সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের অপারেশন অর্ডার

ঐতিহাসিক ৭ মার্চ উপলক্ষে সেক্টর কমান্ডারস ফোরাম চট্টগ্রাম জেলা ও মহানগর শাখার উদ‍্যোগে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার (৭ মার্চ) সকাল ১১টায় নগরের সংগঠন কার্যালয়ে এ সভার আয়োজন করা হয়।

আরও পড়ুন: জিয়া স্মৃতি জাদুঘরের নাম পরিবর্তন চান মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের ছাত্র ফোরাম

সংগঠনের জেলা সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল আলম মন্টুর সভাতিত্বে ও মহানগর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সেলিম চৌধুরীর পরিচালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় সহসাংগঠনিক সম্পাদক বেদারুল আলম চৌধুরী বেদার, মহানগর সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ডা. সরফরাজ খান চৌধুরী, জেলা সাধারণ সম্পাদক নূরে আলম সিদ্দিকী, সহসভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফজল আহমেদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ‍্যাপক জাহিদ হোসেন শরীফ, বীর মুক্তিযোদ্ধা বাদশা মিয়া, বীর মুক্তিযোদ্ধা গৌরী শংকর চৌধুরী ও সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল মালেক খান।

Yakub Group

আরও বক্তব্য রাখেন সাহেদ মুরাদ সাকু, সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য ইঞ্জিনিয়ার পলাশ বড়ুয়া, ডা. ফজলুল হক সিদ্দিকী, নুরুল হুদা চৌধুরী, কামাল উদ্দিন, নবী হোসেন সালাউদ্দিন, মুস্তাফিজুর রহমান বিপ্লব, মঈনুল আলম খান, সোহেল ইকবাল, ইঞ্জিনিয়ার ইয়াকুব মুন্না ও এসএম রাফি।

আরও পড়ুন: সাংবাদিক আহমেদ কুতুবের মতো মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের এগিয়ে আসতে হবে : ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ

সভায় বক্তারা বলেন, ৭ মার্চের ভাষণ ছিল আমাদের স্বাধীনতার ঘোষণা এবং সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের অপারেশন অর্ডার। একজন রাজনৈতিক নেতা হয়েও বঙ্গবন্ধু ‘মুক্তিযুদ্ধের সুপ্রিম কমান্ডার’ হিসেবে একটি চমৎকার যুদ্ধের পরিকল্পনা দিয়েছিলেন। বঙ্গবন্ধু মানুষের মহাসমুদ্রের মাঝে দাঁড়িয়ে কোনো বিরতি ছাড়া, লিখিত নোট ছাড়া এবং কারো কোনো সহায়তা ছাড়া একটি জনযুদ্ধের নির্দেশনা দিয়েছিলেন।

বক্তারা আরও বলেন, মার্চের ভাষণ একটি বিপ্লব। যা পাকিস্তানের দীর্ঘদিনের শোষণ-বঞ্চনার বিরুদ্ধে আমাদের মুক্তিযুদ্ধের সূত্রপাত ঘটিয়েছিল। দীর্ঘ নয় মাস লড়াইয়ের পর ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর বিজয় অর্জিত হয়। দীর্ঘ পঞ্চাশ বছর পরেও ৭ মার্চের সেই ভাষণটি আজও আমাদের জীবনে এত তাৎপর্যপূর্ণ এবং ভবিষ্যতেও এটি অনুপ্রেরণার উৎস হয়ে থাকবে।

আলোকিত চট্টগ্রাম

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm