মাস্ক না পরলে জেল-জরিমানা—স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সতর্কবার্তা

মাস্ক না পরলে জরিমানা, এমনকি জেলও হতে পারে বলে সতর্কবার্তা দিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

বুধবার (১২ জানুয়ারি) বিকেলে রাজধানীর বাংলাদেশ কলেজ অব ফিজিসিয়ান অ্যান্ড সার্জন্স (বিপিসিএস) প্রাঙ্গণে অ্যাম্বুলেন্স ও কম্পিউটার সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

জাহিদ মালেক বলেন, করোনা প্রতিরোধে সরকারের ১১ দফা নির্দেশনা আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) থেকে বাস্তবায়ন শুরু হবে। এর মধ্যে অন্যতম হচ্ছে ধর্মীয়, সামাজিক এবং রাজনৈতিক সভা-সমাবেশ সীমিত ও বন্ধ করা এবং নিরুৎসাহিত করা।

আরও পড়ুন: রোগীর মুখ থেকে মাস্ক খুলে ফেলা সেই ওয়ার্ডবয় র‌্যাবের কব্জায়

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, বৃহস্পতিবার থেকে ব্যবসা-বাণিজ্য, চাকরি, দোকানপাটসহ প্রতিটি কর্মক্ষেত্রে অবশ্যই মাস্ক পরতে হবে। মাস্ক না পরলে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে জরিমানা করা হবে এবং জেল পর্যন্ত হতে পারে। দোকানপাট ৮টার মধ্যে বন্ধ করতে হবে।

তিনি বলেন, গণপরিবহনে যারা যাতায়াত করবেন, তাদেরও মাস্ক পরতে হবে। মাস্ক ছাড়া কেউ গণপরিবহনে উঠবেন না। যারা বিভিন্ন কাজে বাইরে যান, তাদের মাস্ক পরা এবং শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা অত্যন্ত জরুরি।

তিনি আরও বলেন, করোনার সংক্রমণ বাড়ালে হাসপাতালে রোগীর সংখ্যা বাড়বে। ফলে চিকিৎসক-নার্সদের ওপর বাড়তি চাপ সৃষ্টি হবে। শয্যা সংকট তৈরি হবে। মৃত্যুর হারও বেড়ে যাবে।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সিনিয়র সচিব লোকমান হোসেন মিয়া ও স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এবিএম খুরশিদ আলম।

আরবি

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm