বিজিবির রাতভর অভিযানে বিদেশি মুদ্রা—স্বর্ণ উদ্ধার, দুই নারীসহ গ্রেপ্তার ৭

টেকনাফ–২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের জওয়ানেরা বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে ইয়াবা, মিয়ানমার মুদ্রা, স্বর্ণ ও অটোরিকশা জব্দ করেছে।

বৃহস্পতিবার (১২ মে) রাতের অভিযানে বিভিন্ন অপরাধে জড়িত থাকায় বাবা–ছেলে, মা, স্ত্রীসহ ৭ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

টেকনাফ–২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্ণেল শেখ খালিদ মোহাম্মদ ইফতেখার বলেন, শুক্রবার (১৩ মে) রাতে টেকনাফ–২ বিজিবি ব্যাটালিয়ন সদরের বিশেষ টহল দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে টেকনাফের কেরুনতলীর নাফনদী সংলগ্ন একটি বাড়িতে মাদক মজুদের খবরে অভিযান চালায়। এসময় টেকনাফ বরইতলীর মৃত আব্দুল জাব্বারের ছেলে মো. শফি উল্লাহ (৫৫), মো. শফি উল্লাহর ছেলে আনোয়ার হোসাইন (১৯), মো. শফি উল্লাহর স্ত্রী তৈয়বা বেগম (৪০), আনোয়ার হোসাইনের স্ত্রী লাকি আক্তারকে (১৯) জিজ্ঞাসাবাদ করে। গ্যাস সিলিন্ডারের ভেতর থেকে ১০ হাজার ইয়াবা, ২ লাখ ৩০ হাজার ২০০ মিয়ানমার মুদ্রা কিয়াত, ১৪ গ্রাম স্বর্ণালংকারসহ তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

আরও পড়ুন: কাশেম ডাকাতের সহযোগী শফি গ্রেফতার

গ্রেপ্তারদের দেওয়া তথ্যমতে, হ্নীলা চৌধুরীপাড়া স্লুইসগেটে লুকানো আরো ৩০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এছাড়া রাত ৩টায় টেকনাফের প্রধান সড়কে অটোরিকশা তল্লাশি করে ৬০০ পিস ইয়াবা, ১টি অটোরিকশা ও ৩টি মুঠোফোন উদ্ধার করা হয়। গ্রেপ্তার করা হয় উত্তর লেদার শফিক আহমদের ছেলে মো. পারভেজ (১৬), সোলতান আহমদের ছেলে মো. জালাল (২৬) এবং রাহমত আলীর ছেলে মো. রেদোয়ানকে (১৯)।

এদিকে জব্দ করা স্বর্ণ জেলা প্রশাসকের ট্রেজারি শাখায় জমা দেওয়া হয়েছে। এছাড়া জব্দ ইয়াবা, মিয়ানমার মুদ্রা, অটোরিকশা এবং মুঠোফোনসহ গ্রেপ্তারদের নিয়মিত মামলায় টেকনাফ মডেল থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

বলরাম/এসআই

মন্তব্য নেওয়া বন্ধ।

ksrm