জেল খেটে বেরিয়ে বাদির ছেলেকে পেটাল ‘সন্ত্রাসী’ রিকন

চাঁদাবাজি মামলায় জেল থেকে বের হয়েই বাদির ছেলেকে বেধড়ক পেটাল আজিজুল হক চৌধুরী রিকন (২৯) নামের এক সন্ত্রাসী।

মঙ্গলবার (৯ নভেম্বর) চন্দনাইশের বৈলতলীর জাফরাবাদ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত রাকিবুল ইসলাম এসএসসি পরীক্ষার্থী। এ ঘটনায় রিকন ও তার দুই ভাইকে আসামি করে মামলা দায়ের করেছেন তার বাবা নূর এলাহী।

রিকন ছাড়া অন্য আসামিরা হলো- আজিজুল হক চৌধুরী এলিনা (৩৯) ও আজিজ উদ্দিন চৌধুরী টিংকু (২৬)।
জানা যায়, ২০২০ সালের ২৩ মার্চ ৫ লাখ টাকা চাঁদা না পেয়ে রিকন ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী নূর এলাহী নামের এক ব্যক্তির মাছের ঘের দখলের চেষ্টা করে। এ ঘটনায় নূর এলাহী মামলা দায়ের করেন। সেই মামলায় জেল খেটে চার মাস আগে বেরিয়ে আসে রিকন। এরপর থেকে মামলা তুলে নিতে বাদিকে বিভিন্ন সময় হুমকি দিয়ে আসছিল সে।

আরও পড়ুন : পাহাড়ে অস্ত্রের মহড়া দিচ্ছে সন্ত্রাসীরা, সেনাক্যাম্প বসানোর দাবি সাংসদের

Thai Food

৯ নভেম্বর দুপুরে নূর এলাহীর ছেলে এসএসসি পরিক্ষার্থী রাকিবুল ইসলামকে জাফরাবাদ বশিরের দোকানের সামনে থেকে তুলে নিয়ে গাছের সঙ্গে বেঁধে বেধড়ক পেটায় রিকন। পরে ছেলেকে উদ্ধার করে দোহাজারী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান নূর এলাহী। এ ঘটনায় নূর এলাহী বাদি হয়ে ৩ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন।

অভিযোগ রয়েছে, রিকন ও তার দুই ভাই উপজেলার জাফরাবাদসহ বিভিন্ন এলাকায় চাঁদাবাজি করে। তাদের চাঁদা না দিলে এলাকায় কোনো স্থাপনা নির্মাণ করতে দেয় না। প্রতিবাদ করলেই মারধর করে এলাকাছাড়া করে। ১৫টিরও বেশি মামলার আসামি রিকন ও তার দুই ভাই। বেশ কয়েকবার জেলে গেলেও বেরিয়ে আবারো সন্ত্রাসী কাজে লিপ্ত হয় তারা।

এ ব্যাপারে মামলার বাদি নূর এলাহী বলেন, গতবছর চাঁদাবাজির মামলায় জেল খেটে চার মাস আগে বেরিয়ে রিকন আমাকে মামলা তুলে নিতে হুমকি দেয়। তা না হলে পরিবারসহ মেরে ফেলার হুমকি দেয়। সর্বশেষ আমার ছেলেকে দিনদুপুরে তুলে নিয়ে নির্যাতন করেছে। এ ঘটনায় আমি মামলা করেছি।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে চন্দনাইশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাছির উদ্দিন সরকার আলোকিত চট্টগ্রামকে বলেন, রাকিবুল নামের একজনকে অপহরণের ঘটনায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে। এখনো কোনো আসামি আটক হয়নি। আসামি আটকের জন্য অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

সিএম/ডিসি
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm