চট্টগ্রামে ‘কড়াকড়ি’—৬ ‘বিধিনিষেধে’ নজর রাখবেন ১২ টিমের ম্যাজিস্ট্রেট

চট্টগ্রামে করোনার সংক্রমণ ঊর্ধ্বমুখী হওয়ায় নতুন করে কিছু ‘বিধিনিষেধ’ আরোপ করেছে জেলা প্রশাসন।

মঙ্গলবার (২২ জুন) চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের জেএম শাখা থেকে পাঠানো এক গণবিজ্ঞপ্তিতে এসব বিধিনিষেধের কথা জানানো হয়।

গণবিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ২৩ জুন সকাল ৬টা থেকে ৩০ জুন রাত ১২টা পর্যন্ত এসব ‘বিধিনিষেধ’ কার্যকর থাকবে। ‘বিধিনিষেধ’ অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে প্রচলিত আইন অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এজন্য মাঠে থাকবে জেলা প্রশাসনের ১২টি মোবাইল টিম।

বিধিনিষেধে যা থাকছে

১. সরকারি, আধা সরকারি, স্বায়ত্বশাসিত ও বেসরকারি অফিস, ব্যাংক এবং আর্থিক প্রতিষ্ঠান খোলা থাকবে। তবে এসব প্রতিষ্ঠানে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

২. সব পর্যটনকেন্দ্র, রিসোর্ট, কমিউনিটি সেন্টার ও বিনোদনকেন্দ্র বন্ধ থাকবে।

৩. জনসমাবেশ হয় এমন সামাজিক (বিবাহোত্তর অনুষ্ঠান, জন্মদিন, পিকনিক, পার্টি ইত্যাদি) ও রাজনৈতিক অনুষ্ঠান বন্ধ থাকবে।

৪. আবাসিক হোটেল, রেস্তোরাঁ ও খাবারের দোকানগুলো সকাল ৬টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত খাবার বিক্রি/সরবরাহ (Takeway/Online) করতে পারবে এবং আসন সংখ্যার অর্ধেক সেবাগ্রহীতাকে সেবা দিতে পারবে।

৫. জেলার অভ্যন্তরে গণপরিবহন চলাচল করতে পারবে, তবে ধারণক্ষমতার অর্ধেক যাত্রী নিয়ে। মানতে হবে স্বাস্থ্যবিধিও।

৬. সড়কপথে চলাচলকারী ঢাকাগামী সব ধরনের গণপরিবহন বন্ধ থাকবে।

এ বিষয়ে চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) এসএম জাকারিয়া আলোকিত চট্টগ্রামকে বলেন, পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত আগামীকাল থেকে রাত ৮টার পর নগরে ওষুধের দোকান ছাড়া সব ধরনের দোকানপাট বন্ধ থাকবে। মার্কেট-শপিংমলও বন্ধ করতে হবে রাত ৮টার মধ্যেই। একইসময়ের পর হাট-বাজারও খোলা রাখা যাবে না।

তিনি বলেন, তবে হাসপাতালসহ জরুরি সেবা প্রতিষ্ঠানগুলো খোলা থাকবে। বিধিনিষেধ বাস্তবায়নে মাঠে থাকবে মোবাইল কোর্ট।

জেডএইচ
1 মন্তব্য
  1. Mr.SheikhSohel বলেছেন

    Ami Sohmot pochon krci.

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm