চট্টগ্রামে ওয়ালটনের টাকা মেরে লুকিয়ে ছিল পাবনায়, কলসি থেকে বেরিয়ে এলো টাকার পাহাড়

টাকা আত্মসাতের মামলায় নুরজাহান বেগম (২৬) নামে এক নারীকে পাবনা থেকে গ্রেপ্তার করেছে কোতোয়ালী থানা পুলিশ।

শনিবার (৩০ এপ্রিল) পাবনা হেমায়েতপুর থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তার কাছ থেকে নগদ ৩২ লাখ ৮৯ হাজার টাকাসহ একটি ল্যাপটপ ও মোবাইল উদ্ধার করা হয়।

আরও পড়ুন: দুই যাত্রী জাপটে ধরল যুবককে, টাকা—মোবাইল নিয়ে ফেলে দিল চলন্ত অটোরিকশা থেকে

পুলিশ জানায়, নুরজাহান বেগমের স্বামী ফারুক হোসেন চট্টগ্রামে ওয়ালটনের মার্কেটিং বিভাগের প্রধান হিসেবে দীর্ঘদিন কর্মরত ছিলেন। সে সুবাধে তিনি বিভিন্ন সময় জুবিলী রোড, নন্দনকাননসহ নগরের বিভিন্ন শো রুম থেকে নগদ অর্থ সংগ্রহ করেন। পরে নগদ ৭৭ লাখ টাকা কোম্পানিতে জমা না দিয়ে স্ত্রীসহ চট্টগ্রাম থেকে নিজ বাড়িতে পালিয়ে যান ফারুক হোসেন। এ ঘটনার পর গত ২২ এপ্রিল ওয়ালটন কর্তৃপক্ষ কোতোয়ালী থানায় মামলা দায়ের করে।

পুলিশ আরও জানায়, মামলার পর গোপন সংবাদের অভিযান চালিয়ে স্ত্রী নুরজাহান বেগমকে গ্রেপ্তার করা হয়। এসময় কলসি ও টিনের জারে লুকিয়ে রাখা নগদ ৩২ লাখ ৮৯ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়।

Yakub Group

আরও পড়ুন: পেকুয়ায় যুবকের পকেটে ছিল হাজার টাকার ৮০ জাল নোট

এ বিষয়ে কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি জাহিদুল কবীর আলোকিত চট্টগ্রামকে বলেন, আসামিদের অবস্থান চিহ্নিত হয়ে পাবনার হেমায়েতপুর থেকে স্ত্রী নুরজাহান বেগমকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে তার কাছ থেকে নগদ ৩২ লাখ ৮৯ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়।

তবে তার স্বামী ফারুক হোসেন পলাতক। তাকে গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

আরবি/আলোকিত চট্টগ্রাম

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

মন্তব্য নেওয়া বন্ধ।

ksrm