গোসলের নগ্ন ভিডিও দেখিয়ে চট্টগ্রামে গৃহবধূকে লাগাতার ধর্ষণ

সীতাকুণ্ডে এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে আবদুল্লা আল মামুন (২৫) নামের এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

শনিবার (১ অক্টোবর) রাতে মামলার পর এক নম্বর আসামি আব্দুল্লা আল মামুনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, সীতাকুণ্ড উপজেলার বাড়বকুণ্ড ইউনিয়নের নতুনপাড়া গ্রামের গৃহবধূ বাড়ির পুকুরে গোসল করার সময় মামুন গোপনে নগ্ন ভিডিও ধারণ করেন। এরপর ঘরে একা থাকার সুযোগ নিয়ে ঢুকে ভিডিওগুলো দেখিয়ে ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়াসহ নানা ভয়ভীতি দেখিয়ে ধর্ষণ করেন। পরিবারের নিরাপত্তার কথা ভেবে কাউকে না জানিয়ে বিষয়টি গোপন রাখেন গৃহবধূ।

আরও পড়ুন: পুলিশের প্রমোশনেও ‘বাণিজ্য’—’ওসি’ হলে বিয়ের লোভ দেখিয়ে ধর্ষণ, মেরে দিল ১০ লাখ টাকা

সর্বশেষ চলতি বছরের ৩ আগস্ট বেলা সাড়ে ১২টায় মামুন আবারও ভয়ভীতি দেখিয়ে ওই গৃহবধূকে ধর্ষণ করেন। এ সময় তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন আসতে দেখে অভিযুক্ত মামুন পালিয়ে যায়। এরপর ২০২১ সালের এপ্রিল মাসে ধর্ষণের শিকার গৃহবধূ একটি কন্যা সন্তানের জন্ম দেন। পরে ঘটনা জানাজানি হলে একপর্যায়ে প্রতিবেশীদের চাপে ওই গৃহবধূ সব ঘটনা খুলে বলেন।

Yakub Group

গৃহবধূর স্বামী নুরুল হুদা সুমন বলেন, আমার স্ত্রীর গর্ভে যে কন্যা সন্তানের জন্ম হয়েছে তার সঙ্গে ধর্ষক মামুনের চেহারার মিল থাকায় প্রতিবেশীরা বিষয়টি নিয়ে সমালোচনা শুরু করে। এ নিয়ে আমার স্ত্রী বেশ কয়েকবার আত্মহত্যার চেষ্টাও করেন। ধর্ষকের পরিবারের সদস্যরাও আমাদের হুমকি দিচ্ছে। তাই তাদেরও মামলাার আসামি করা হয়েছে। কিন্তু তারা প্রভাবশালী হওয়ায় আমরা নিরাপত্তাহীনতায় আছি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপপরিদর্শক নাছরুল্লাহ বলেন, মামলার ১ নম্বর আসামিকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

এসএস/আরবি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

মন্তব্য নেওয়া বন্ধ।

ksrm