‘রহস্য’—এক বছর ধরে একা থাকা প্রবাসীর স্ত্রীর ওড়না পেঁচানো লাশ পড়ে ছিল বিছানায়

গলায় ওড়না পেঁচানো লাকী আক্তার (৩০) নামে এক প্রবাসীর স্ত্রীর লাশ উদ্ধার করেছে সীতাকুণ্ড থানা পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (৯ডিসেম্বর) সকালে সীতাকুণ্ডের দক্ষিণ মহাদেবপুর ৬ নম্বর ওয়ার্ডের জসিম মঞ্জিলের তৃতীয় তলার একটি ভাড়া বাসা থেকে ওই গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করা হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মুরাদপুর ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা ইউনুছ প্রকাশ টুনু মিয়ার ছেলে সৌদি প্রবাসী আব্দুল মান্নানের সঙ্গে ৮ বছর আগে মিরসরাই উপজেলার ১৪ নম্বর হাইতকান্দি ইউনিয়নের উত্তর করুয়া ৭ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা মৃত শুকুর আহমেদের মেয়ে লাকী আক্তারের বিয়ে হয়।

আরও পড়ুন: গরিবের লাশ দাফন—সিন্ডিকেটের কারসাজিতে বন্ধ বিনামূল্যের ‘শেষ স্পর্শ’

এরপর প্রবাসীর স্ত্রী গত এক বছর ধরে সীতাকুণ্ড পৌরসদরের দক্ষিণ মহাদেবপুর ৬নম্বর ওয়ার্ডের জসিম মঞ্জিলে তৃতীয় তলার একটি ভাড়া বাসায় একা বসবাস করছিলেন। আজ (বৃহস্পতিবার) সকালে বাসা থেকে লাকী আক্তারের গলায় ওড়না পেঁচানো লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

যোগাযোগ করা হলে সীতাকুণ্ড মডেল থানার এসআই খোরশেদ আলম আলোকিত চট্টগ্রামকে বলেন, খবর পেয়ে বাসার ভেতর বিছানা থেকে লাকী আক্তারের লাশ উদ্ধার করা হয়। এ সময় তার গলায় ওড়না পেঁচানো ছিল।

তিনি আরও বলেন, নিহত লাকী আক্তার প্রবাসী মান্নানের দ্বিতীয় স্ত্রী। ধারনা করছি তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের পর এ বিষয়ে বিস্তারিত জানা যাবে। নিহতের লাশ চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

সালাউদ্দিন/আরবি

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm