‘এসপি বাবুল আক্তারের বৌ হত্যা’—ভারতে পালিয়ে যাওয়ার সময় ধরা পড়ল ভোলা

চট্টগ্রামের চাঞ্চল্যকর মাহমুদা আক্তার মিতু হত্যা মামলার অন্যতম আসামি ও অস্ত্র সরবরাহকারী এহতেশামুল হক ভোলাকে বেনাপোল সীমান্ত এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

শনিবার (২৩ অক্টোবর) ভোরে ভারতে পালিয়ে যাওয়ার সময় ভোলাকে গ্রেপ্তার করে পিবিআই।

ভোলা চট্টগ্রামের বাকলিয়া থানার রাজাখালী এলাকায় মৃত সিরাজুল হকের ছেলে।

আরও পড়ুন: ‘এসপি বাবুলের’ বৌ মিতু—কিলিং মিশনের ভোলা জামিন পেলেন

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআই চট্টগ্রাম মেট্রো অঞ্চলের পরিদর্শক সন্তোষ চাকমা ভোলাকে গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এদিকে আদালত সূত্রে জাানা গেছে, গ্রেপ্তারের পর আজ (শনিবার) বিকেলে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. শফি উদ্দিনের আদালতে আসামি ভোলার ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি নেওয়া হয়েছে।

Thai Food

তবে এ বিষয়ে মন্তব্য করতে রাজি হননি মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন পিবিআইয়ের পরিদর্শক সন্তোষ কুমার চাকমা।

পিবিআই জানায়, চাঞ্চল্যকর মিতু হত্যা মামলায় ব্যবহৃত আগ্নেয়াস্ত্র ও গুলি সরবরাহ করেছিলেন এহেতেশামুল হক ভোলা। ইতোপূর্বে গ্রেপ্তার হয়ে কারাভোগ করে বেশ কিছুদিন জামিনে ছিলেন। সম্প্রতি তার বিরুদ্ধে পুনরায় গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হলে তিনি হাইকোর্টে আগাম জামিনের আবেদন করেন। আদালত তাকে নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পনের আদেশ দেন।

আরও পড়ুন: মিতু হত্যা—সেই ‘এসপি’ বাবুল আক্তারের আবারও জামিন মেলেনি

তবে বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পন না করে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন ভোলা।

খবর পেয়ে পিবিআই অভিযান পরিচালনা করে। গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে ভারত সীমান্তের বেনাপোল বাজারের দুর্গাপুর বাজার রোড থেকে ভোলাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

এ মামলার প্রধান আসামি হিসেবে কারাবন্দি আছেন সাবেক পুলিশ সুপার মিতুর স্বামী বাবুল আক্তার

আরবি
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm