ইয়াস আতঙ্কের মাঝেই হালদায় খুশির জোয়ার

 

ঘূর্ণিঝড় `ইয়াস’ আতঙ্কের মাঝেই হালদায় বইছে খুশির জোয়ার।  প্রাকৃতিক মৎস্য প্রজনন ক্ষেত্র বঙ্গবন্ধু মৎস্য হেরিটেজ হালদা নদীতে পূর্ণিমা তিথিতে অবশেষে নমুনা ডিম ছেড়েছে মামাছ।

গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে নদীর গড়দুয়ারা নয়াহাট বাজার আজিমের ঘাট এলাকায় ডিম সংগ্রহকারীদের জালে মা-মাছের নমুনা ডিম আটকা পড়ে।

মামাছের নমুনা ডিম দেখে আশায় বুক বেঁধেছেন ডিম সংগ্রহকারীরা। কারণ নমুনা ডিম ছাড়ার যে কোনো সময় ডিম ছাড়বে মা-মাছ। ডিম সংগ্রহকারীরা কয়েকদিন আগে থেকেই নৌকা নিয়ে হালদায় মামাছের ডিম ছাড়ার অপেক্ষায় নির্ঘুম রাত কাটিয়েছেন। অবশেষে সেই নির্ঘুম রাতের কষ্ট ভুলে হাসি ফুটেছে ডিম সংগ্রহকারীদের মুখে।

হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ রুহুল আমীন বলেন,হালদা নদীতে জোয়ারের সময় ডিম সংগ্রহকারী কামাল উদ্দীন সওদাগর আশু বড়ুয়াসহ অনেকের জালে মা মাছের নমুনা ডিম আটকা পড়েছে।

ডিম সংগ্রহকারী কামাল উদ্দীন সওদাগর এর মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন,হালদায় জোয়ারের সময় জালে নমুনা ডিম দেখতে পায়। কয়েকদিন আগে থেকেই ডিম ছাড়ার অপেক্ষায় হালদায় নির্ঘুম রাত কাটিয়েছি।’

হালদা গবেষক চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় প্রাণীবিদ্যা বিভাগ অধ্যাপক মনজুরুল কিবরিয়া বলেন, ‘মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে নদীতে জোয়ারের সময় ডিম সংগ্রহকারীদের জালে মা মাছের নমুনা ডিম পাওয়ার সংবাদ পেয়েছি।’ পূর্ণিমা তিথিতে ভাটার টানে মা মাছ ডিম ছেড়েছে বলে তিনি জানান।

আরবি 

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm