‘টাকার লোভ’—আনোয়ারার ইয়াবা আলকরণে বেচতে এসে ধরা খেল ৩ যুবক

আরশাদ, কায়সার ও আরমান আনোয়ারা থেকে ইয়াবা সংগ্রহ করে বেশি দামে বিক্রির আশায় আসতো নগরে।

রেলওয়ে স্টেশনের আশপাশের মাদকসেবীদের কাছে তারা বিক্রি করতো এসব মাদক।

প্রতিদিনের মতো বৃহস্পতিবার (৩ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায়ও মাদক বিক্রি করতে এসেছিল আলকরণ এলাকায়। কিন্তু শেষ রক্ষা হলো না। কোতোয়ালী থানা পুলিশ ৪ হাজার ৯০০ পিস ইয়াবাসহ আটক করে তাদের।

আরও পড়ুুন : প্রতিবন্ধীকে দিয়েও চলছে ইয়াবার বাণিজ্য!

Yakub Group

আটক মো. আরশাদ (৪০) পাঠানটুলী কোরবান আলী সওদাগার বাড়ির মৃত আবুল বাশারের ছেলে। কাজী মো. কায়ছার (৩৬) আনোয়ারার বৈরাগ ইউনিয়নের গুরুপঞ্চক গ্রামের কাজী বজলুর রহমানের ছেলে। মো. আরমান উদ্দিন (২২) আনোয়ারার হাইলধর লিয়াকত বাড়ির মৃত সাইফুদ্দিনের ছেলে।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আলকরণ এলাকায় অবস্থান নেয় পুলিশ। এরপর ইয়াবা বিক্রির সময় মো. আরশাদ, কাজী মো. কায়ছার ও মো. আরমান উদ্দিনকে আটক করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে ৪ হাজার ৮০০ পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের বাড়িতে আরো ইয়াবা আছে বলে জানায় কায়সার। এরপর আনোয়ারার ১ নম্বর বৈরাগ ইউনিয়নের গুয়াপঞ্চক কাজী বাড়িতে কায়সারের গোডাউনের ভেতরে টেবিলের ড্রয়ার থেকে আরো ১০০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

তাদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য আইনের মামলা করা হয়েছে।

ডিসি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm