আঁধারে মিলিয়ে গেল ২৫ রোহিঙ্গা ডাকাত, অস্ত্রসহ আটক ৯

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে দেশীয় অস্ত্রসহ ৯ রোহিঙ্গা ডাকাতকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এসময় ২৫-২৬ জন অন্ধকারে পালিয়ে যায়। ৭ ডিসেম্বর (মঙ্গলবার) গভীর রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ক্যাম্প-৯ এ অভিযান চালায় ৮ আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন এপিবিএন সদস্যরা।

অভিযানের নেতৃত্ব দেন পানবাজার পুলিশ ক্যাম্পের এসআই মু. ফয়জুল আজীম ও এএসআই শেখ মো. ইয়াছিন। অভিযানের সত্যতা নিশ্চিত করেন ৮ এপিবিএন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. কামরান হোসেন।

এপিবিএন সূত্রে জানা যায়, গভীর রাতে ক্যাম্প-৯ এর সি-১১ ব্লকের মক্তবের সামনে ডাকাতির উদ্দেশ্যে অবস্থান করে ৩০-৩৫ জন রোহিঙ্গা ডাকাত। এসময় এপিবিএন সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় রোহিঙ্গা ডাকাত দলের ৯ সদস্যকে আটক করা হয়।

আরও পড়ুন: চকরিয়ায় ভোরের বন্দুকযুদ্ধে ২ ডাকাত নিহত

আটকরা হলেন- ক্যাম্প-৯ এর সি-১৭ ব্লকের মো. সলিমের ছেলে মো. শফিক (২২), সি-৪ ব্লকের আব্দু শুক্কুরের ছেলে নুর মোস্তফা (২২), এ-৩ ব্লকের মতিউর রহমানের ছেলে মু. মিয়া (৩৮), ক্যাম্প-২৫ এর ডি-৭ ব্লকের আব্দু শুক্কুরের ছেলে হেদায়েত উল্লাহ (২২), ক্যাম্প-১৫ এর এ-৩ ব্লকের মৃত মো. সফির ছেলে সফিউল আলম (৩৮), সি-১ ব্লকের মৃত সোনা আলীর ছেলে আবুল কালাম (২৪), ক্যাম্প-১১ এর ই-২ ব্লকের মৃত কাছিমের ছেলে জাফর আলম (৪৭), ক্যাম্প-১৮ এর এম-১১ ব্লকের মোজাহের মিয়ার ছেলে জাহিদ উল্লাহ (২৪) এবং এম-৫ ব্লকের মুসলিমের ছেলে শফিউল্লাহ (৩৩)।

৮ এপিবিএন পুলিশ সুপার মো. সিহাব কায়সার খান জানান, রোহিঙ্গা ক্যাম্প-৯ এ ডাকাতির প্রস্তুতিকালে অভিযান চালিয়ে দেশীয় অস্ত্রসহ বিভিন্ন ক্যাম্পের ৯ জন রোহিঙ্গা ডাকাতদলের সদস্য আটক করা হয়েছে। এ সময় ২৫-২৬ জন রোহিঙ্গা ডাকাত পালিয়ে যায়।

আটক রোহিঙ্গারা সবাই তালিকাভুক্ত দুষ্কৃতকারী। আটকদের থেকে ৬টি দা ও ৩টি ডাকাতির সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উখিয়া থানায় মামলা রুজু করা হয়েছে।

এসি
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm